ফিডব্যাক : Tag

মৌসুমী কারে ভালোবাস তুমি (ফিরে এসো এই অন্তরে)

ফিরে এসো এই অন্তরে ফিরে এসো এই অন্তরে তুলনাহীনা বান্ধবী যেও নাকো তুমি ঐ দূরে ব্যথা জাগে এই মন জুড়ে হতে চাই গিয়ে তোমার গীতি কবি মৌসুমী কারে ভালোবাস তুমি মৌসুমী বল কারে খোঁজ তুমি মৌসুমী আছি একা এই আমি ভুলে অভিমান হও সঙ্গীনি। তুমি আছ প্রান স্পন্দনে তুমি আছ হাসি...
চোখ জলে ভেজা স্যাঁতস্যাঁতে (গীতিকবিতা ২)

চোখ জলে ভেজা স্যাঁতস্যাঁতে (গীতিকবিতা ২)

[ইতিহাস তুমি কেঁদোনা, পরিবর্তন আসে চিরক্লা ন্তির ভাবনা, তোমাকেই ভালবাসে বন্ধু তুমি কেঁদোনা, আমারও কান্না আছে কাঁদিনা তোমারি জন্য, তুমি ভেসে যাও পাছে…] চোখ জলে ভেজা স্যাঁতস্যাঁতে, বালিশের উপর শুয়ে কাটছে অনেক রাত, ধন্যবাদ হে ভালোবাসা, ধন্যবাদ হে দু:খ দেয়া। সুখে...
মনে পড়ে তোমায়, মনে পড়ে ভালোবাসায় (গীতিকবিতা ১)

মনে পড়ে তোমায়, মনে পড়ে ভালোবাসায় (গীতিকবিতা ১)

[চলে যাওয়া মানে প্রস্থান নয়; বিচ্ছেদ নয় চলে যাওয়া মানে নয় বন্ধন ছিন্ন-করা আর্দ্র রজনী চলে গেলে আমারও অধিক কিছু থেকে যাবে আমার না-থাকা জুড়ে…] মনে পড়ে তোমায়, মনে পড়ে ভালোবাসায় মনে পড়ে অপমানে, মনে পড়ে ক্ষমায় মনে পড়ে আলিঙ্গনে, মনে পড়ে অপারগতায় মনে পড়ে অতুল...

সামাজিক কোষ্ঠকাঠিন্য

হেরোইনের ব্যবসা করে তুমি বুলি আওড়াচ্ছো মানবতার আর তেজস্ক্রিয় দুধ আমাদানি করে গড়ে তুলছো কালো টাকার পাহাড় তবে সন্ধ্যে এলে, কোনও শুদ্ধ সংগীতের আসরে তুমি সংস্কৃতির পৃষ্ঠপোষকতা করো আর হুইসকি সেবন করো, হুইসকি সেবন করো। এ যুগের পাদুকা, এ যুগের প্রসাধনী এ যুগের বড় কথা, এ...

ফিরে এসো এই অন্তরে (মৌসুমী)

ফিরে এসো এই অন্তরে তুলনাহীনা বান্ধবী যেওনাকো তুমি ঐ দূরে ব্যাথা জাগে এই মন জুড়ে হতে চাই গিয়ে তোমার গীতি কবি মৌসুমী কারে ভালোবাস তুমি মৌসুমী বল কারে খোঁজ তুমি মৌসুমী আছি একা এই আমি ভূলে অভিমান হও সঙ্গীনি । তুমি আছ প্রান স্পন্দনে তুমি আছ হাসি ক্রন্দনে অপরাজিতা নন্দিনী...

বাংলাদেশ (নিজেরই দেশ)

হতে পারে এই গরিবের দেশ হতে পারে অবহেলিদের দেশ তবু যে আমার বাংলাদেশ সবুজ দেশে লাল টকটকে সূর্য ওঠে দোয়েল কোয়েলের গানের সুরে ভোরে আমার ঘুম ভাঙ্গে। বাংলাদেশ মাগো যখন আমি তোমার কোলে মনে পড়ে কানে বলেছিলে এদেশ তোমারি দেশ, ভালবাসার বাংলাদেশ ঘোরের হোক বুকের রক্ত ঢেলে সোনার দেশ...

মেলায় যাইরে

লেগেছে বাঙালীর ঘরে ঘরে একি মাতনদোলা লেগেছে সুরেরই তালে তালে হৃদয় মাতনদোলা বছর ঘুরে এল আরেক প্রভাতী ফিরে এল সুরেরই মঞ্জুরী পলাশ শিমুল গাছে লেগেছে আগুন এ বুঝি বৈশাখ এলেই শুনি মেলায় যাইরে বাসন্তী রঙ শাড়ি পড়ে ললনারা হেঁটে যায় বখাটে ছেলের ভিড়ে ললনাদের রেহাই নাই লেগেছে...

কেন খুলেছো তোমার জানালা

কেন খুলেছো তোমার ঐ জানালা কেন তাকিয়ে রয়েছো জানি না তো মনে যে কি আছে বলো না আমি সে কথা না শুনে যাবো না না ফিরে যাবো না কেন দু’চোখে আলোর ইশারা কেন অধরে হাসির ফোয়ারা যে বুঝিয়ে আমাকে বলো না আমি না জেনে সে কথা যাবো না না ফিরে যাবো না দুর থেকে দেখে ভালোবাসি তুমি কি বোঝ না...

আজ তোমার চিঠি

আজ তোমার চিঠি যদি না পেলাম হায় না কি ভেবে নেবো ডাকপিয়নের অসুখ হয়েছে আজ বেলা শেষে যদি খেলা ভাঙে হায় না কি ভেবে নেবো আজ আশার মরণ হয়েছে আমি দিন শেষে যেন রাত্রিতে দেখেছি তোমার মুখ না কি তন্দ্রাকে আজ স্বপ্ন ভেবে কেঁদে ভাসিয়েছি আমার বুক আজ কুসুম কলি ভোরে ঝরে গেলে হায় আমি...

চোখে জলে ভেজা স্যাতস্যাতে

ইতিহাস তুমি কেঁদো না পরিবর্তন আসে চিরক্লান্তির ভাবনা তোমাকেই ভালোবেসে বন্ধু তুমি কেঁদো না আমারও কান্না আছে কাঁদে না তোমারই জন্য তুমি ভেসে যাও পাছে… —————————– চোখে জলে ভেজা স্যাতস্যাতে বালিশের ওপর শুয়ে...

হেসে খেলে এই মনটা আমার

হেসে খেলে এই মনটা আমার কেড়ে নিলে এত সহজেই এ যে প্রতারনা তা জানি না কেঁদে কেটে এই মনটা আমার অবহেলা আর অতৃপ্ততায় জুটলো বেদনা আর কিছু না তোমার প্রেমে ধন্য হয়ে অতঃপর কত পূর্ন ভেবে এক সোনার আলো এসেছিলো আমার জানালায় মন হয়েছিলো কাব্যময় অপরূপ এক কল্প হয় প্রান উজার করে আমি...